২ জনকে কুপিয়ে হত্যা, ১ জনকে আহত করেছে ভারসাম্যহীন এক যুবক।

0 28

ইউনুস আলী (২৪) নামে এক যুবকের ছুরিকাঘাতে নরসিংদীতে কৃষক নিহত এবং ১ ব্যক্তি আহত হয়েছেনঘটনাটি আজ বুধবার সকাল ৯টার দিকে সদর উপজেলার চরাঞ্চলের নজরপুর ইউনিয়নের ছগরিয়াপাড়া গ্রামে ঘটেছে 

মৃত ব্যক্তিরা হলেন, ছগরিয়াপাড়া গ্রামের মৃত আবুল ফজলের ছেলে ফরহাদ মিয়া (৬০) ও মৃত দেওয়ান আলীর ছেলে আলী আকবর (৫০)। একই গ্রামের জনু মিয়ার ছেলে সেচপাম্প চালক সেন্টু মিয়া (৪৫) এ ঘটনায় আহত হয়েছেন

এছাড়া একই গ্রামের অভিযুক্ত আব্দুল মান্নানের ছেলে ইউনুস আলীকে আটক করেছে পুলিশ।পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, সকালে কৃষক ফরহাদ মিয়া ও আলী আকবর গ্রামের কৃষিজমিতে কাজ করছিলেন। এমন সময় এলাকার চিহ্নিত মাদকসেবী ইউনুস আলী হঠাৎ করেই ওই জমিতে গিয়ে ছুরি নিয়ে তাদের উপর হামলা চালান এবং এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করতে থাকেন। তাদের চিৎকারে পাশে থাকা সেচপাম্প চালক সেন্টু মিয়া তাদের বাঁচাতে এগিয়ে গেলে তাকেও ছুরিকাঘাত করেন ইউনুস।

সে সময় হাসপাতালে নেয়ার পথে ফরহাদ মিয়ার ও ঘটনাস্থলেই আলী আকবরের মৃত্যু হয় এবং আহত সেন্টু মিয়াকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। সদর মডেল থানা পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।এদিকে এলাকাবাসী অভিযুক্ত ইউনুছ আলীকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে। এলাকাবাসী জানায়, ইউনুস মিয়া খুবই চুপচুাপ ধরনের ব্যক্তি, তিনি কারো সাথে খুব একটা কথা বলেন না। কিছুদিন ধরে তিনি বিদেশ যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন। তবে মেডিকেল রিপোর্টে ব্রেনে সমস্যা দেখা যাওয়ায় তিনি বিদেশ যেতে পারেননি। এ নিয়ে কিছুটা হতাশায় ভুগছিলেন তিনি।

অভিযুক্ত ইউনুসকে আটক করার পর পুলিশ পাহারায় চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। কী কারণে এই হত্যার ঘটনা ঘটেছে তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। অভিযুক্ত ইউনুস আলী মাদকাসক্ত বা মানসিক ভারসাম্যহীন কী না তাও ডাক্তারী পরীক্ষার পর নিশ্চিত হওয়া যাবে। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানায়,  নরসিংদী সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিপ্লব কুমার দত্ত চৌধুরী

Leave A Reply

Your email address will not be published.