দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে পণ্য পরিবহনে রাতে চলবে ফেরি

0 13

জরুরি সেবাদানকারী যানবাহন ছাড়া সব রকম সাধারণ পণ্য ও যাত্রীবাহী পরিবহন পারাপার বন্ধ রেখেছে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে চলাচলকারী ফেরিগুলো। তবে পণ্য পরিবহনের জন্য রাতে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক থাকবে। বুধবার গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আমিনুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

রাতে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক থাকলেও সেখানে কঠোরতবে জরুরি ভিত্তিতে চলাচলকারী গাড়ি যেমন-ওষুধের গাড়ি, লাশবাহী গাড়িগুলোকে পার করা হচ্ছে। এছাড়া সব ধরনের যানবাহন পারাপার বন্ধ রয়েছে নজরদারী থাকবে

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, লকডাউনের কারণে ব্যস্ততম এই নৌরুটে সব ধরণের নৌযান চলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে পণ্য পরিবহণের জন্য রাতে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক থাকবে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিসির) দৌলতদিয়া ফেরিঘাটের এজিএম মো. ফিরোজ শেখ বলেন, দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটের ফেরিবহরে ১৭টি ফেরি রয়েছে। প্রশাসন লকডাইনের কারণে ফেরি চলাচল বন্ধ রেখেছে। তবে অ্যাম্বুলেন্স ও মরদেহ পারাপারের জন্য মাঝে মাঝে দুইটি ফেরি চলাচল করছে। রাতে দৌলতদিয়া ফেরিঘাট দিয়ে সহস্রাধিক পণ্যবাহী ট্রাক পচনশীল দ্রব্য নিয়ে ঢাকা সহ দেশের বিভিন্ন স্থানে পৌছায়। সেই দিন বিবেচনা প্রশাসন ফেরি চলাচলের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

পাটুরিয়া ঘাটে দায়িত্বরত ট্রাফিক সার্জেন্ট গোলজার বলেন, ভোরের দিকে কয়েকটি ফেরিতে করে যানবাহন পার করা হয়েছে তবে সকাল ৬টা থেকে সব ধরনের যানবাহন পারাপার বন্ধ রয়েছে। ট্রাফিকের পাশাপাশি ঘাট এলাকায় আরো বেশ কিছু স্থানীয় থানার পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। তবে বর্তমানে পাটুরিয়া ঘাট এলাকায় তিনটি লাশবাহী গাড়ি নৌপথ পারের অপেক্ষায় রয়েছে। আরো কিছু জরুরি গাড়ি এলে হয়তো ওই গাড়িগুলোকে ফেরি পারাপার করা হতে পরে বলেও জানান তিনি। 

তবে ট্রাক চালকেরা জানিয়েছেন, পচনশীল পণ্য সাধারণ রাতে পরিবহন করা হয়। দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চল থেকে পণ্য পৌঁছে দিয়ে রাতেই যেন তারা গন্তব্য স্থানে ফিরে আসতে পারেন সেই দিক বিবেচনা করে ১৭টি ফেরি চালু রাখার দাবি করেন ট্রাক চালকেরা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.