না ফেরার দেশে চলে গেছেন এইচ টি ইমাম।

0 11

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উপদেষ্টা হোসেন তৌফিক (এইচ টি) ইমাম মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি…..রাজিউন)। বুধবার রাতে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। সারা বাংলাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন তার ছেলে সংসদ সদস্য তানভীর ইমাম ।

প্রসঙ্গত, কিডনি জটিলতাসহ বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন অসুস্থতা নিয়ে তিনি বেশ কিছুদিন আগে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি হন। সেখানে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। মঙ্গলবার বিকাল থেকে তার শারীরিক পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়।

ঢাকা কলেজিয়েট স্কুল থেকে ম্যাট্রিক পাস করেন এইচ টি ইমাম। ইন্টারমিডিয়েট পাস করেন পাবনা এডওয়ার্ড কলেজ থেকে। এরপর রাজশাহী কলেজ থেকে বিএ ডিগ্রি নিয়ে তিনি ভর্তি হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে, অর্থনীতিতে স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন। তখন তিনি বাম ছাত্র সংগঠনে যুক্ত ছিলেন।পড়াশোনা শেষ করে তিনি রাজশাহী সরকারি কলেজে অর্থনীতির প্রভাষক হিসেবে যোগ দেন। এরপর পাকিস্তানে সিভিল সার্ভিস (সিএসপি) পরীক্ষায় অংশ নিয়ে সরকারি চাকরিতে যোগ দেন।  পরে পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা করেন লন্ডনের স্কুল অব ইকোনমিকস থেকে।

এইচ টি ইমামের জন্ম ১৯৩৯ সালে। পুরো নাম হোসেন তৌফিক হলেও এইচ টি ইমাম নামেই পরিচিত হয়ে ওঠেন। বাবার চাকরি সূত্রে তার শৈশব-কৈশোর কেটেছে দেশের বিভিন্ন এলাকায়।

১৯৭১ সালে পাকিস্তান সরকারের চাকরিতে থাকা অবস্থায় পাকিস্তানের প্রতি আনুগত্য ত্যাগ করে মুক্তিযুদ্ধে যোগ দিয়েছিলেন এইচ টি ইমাম। স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম মন্ত্রিপরিষদ সচিবও হন তিনি।

স্বাধীনতার পর ১৯৭৫ সালের ২৬ অগাস্ট পর্যন্ত তিনি মন্ত্রিপরিষদের সচিবের দায়িত্বে ছিলেন। এরপর ১৯৭৮ থেকে ১৯৮৪ পর্যন্ত সাভারের লোকপ্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের প্রকল্প পরিচালকের দায়িত্ব পালন করেন। তিনি যোগাযোগ ও পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সচিবের দায়িত্বও পালন করেন।

তিনি দেশের মুক্তিযুদ্ধ, ইতিহাস ও রাজনীতি নিয়ে বেশ কয়েকটি বইও লিখেছেন।এইচ টি ইমামের ছেলে তানভীর ইমাম সিরাজগঞ্জ- ৪ আসনে আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য।

Leave A Reply

Your email address will not be published.